৫ মাস পর হলে এসে ছাত্রীরা দেখেন জিনিসপত্র ও সার্টিফিকেট গায়েব

টাঙ্গাইলের বঙ্গবন্ধু টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজের ছাত্রীদের আবাসিক হলে চুরির ঘটনা ঘটেছে। কর্তৃপক্ষের অবহেলায় ছাত্রীদের মূল্যবান সার্টিফিকেটসহ কয়েক লাখ টাকার মালামাল চুরি করে নিয়ে গেছে চোরেরা।

এর ক্ষতিপূরণসহ যথাযথ ব্যবস্থা না নেয়া হলে আন্দোলনের ডাক দিয়েছেন শিক্ষার্থীরা। তবে কলেজ কর্তৃপক্ষ অবহেলার বিষয় অস্বীকার করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দিয়েছেন।

পুলিশ জানায়, প্রতিষ্ঠানটির অধ্যক্ষের বাসভবন থেকে পঁচিশ গজ দূরে অবস্থিত ওই হলের দোতলা ভবনে সাতটি রুমে বিভিন্ন বিভাগের ২৭ জন ছাত্রী থাকতেন।

করোনার কারণে ১৭ মার্চ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণার আগের দিন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে হল ছাড়েন তারা। দীর্ঘ পাঁচ মাস পর শুক্রবার হলে এসে শিক্ষার্থীরা দেখেন প্রতিটি রুমেই ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে তাদের জিনিসপত্র। নেই মূল্যবান মালামাল ও সার্টিফিকেট।

শিক্ষার্র্থীদর অভিযোগ, ঘটনা জানাজানির ২৪ ঘণ্টা পেরিয়ে গেলেও ঘটনাস্থলে আসেননি অধ্যক্ষ। কোনো ব্যবস্থা না নেয়াসহ ঘটনাটি ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা করা হচ্ছে। এর আগেও ছাত্রী ও ছাত্রদের আবাসিক হলে একাধিকবার চুরির ঘটনা ঘটলেও তা নিয়ে কর্তৃপক্ষ কোনো ব্যবস্থা নেয়নি।

তবে অবহেলার বিষয়টি অস্বীকার করে কলেজের অধ্যক্ষ মো. বকতিয়ার হোসেন বলেন, প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে।

কালিহাতীর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাসান আল মামুন বলেন, সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। কলেজ কর্তৃপক্ষ লিখিত অভিযোগ দিলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *